Best bengali short stories in 2019 | WhatsApp short story | InteresT EducatioN




কিছুদিন আগে রেডিওতে একটা গল্প শুনছিলাম। গল্পটি শুনে খুব ভালো লাগলো এমন একটা গল্প হতেও পারে ভাবতে পারিনি, আমি দেখলাম এই গল্পটির সাথে আমাদের রোজকার জীবনের একটা মিল আছে, তাই গল্পটা আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করলাম গল্পটি পড়তে থাকুন দেখুন আপনাদের হয়তো ভালো লাগতে পারে ।

গল্পটি শুরু হয় যখন একটি বাস ভর্তি প্যাসেঞ্জার তীর্থ করে ফিরছিল । এলাকাটা ছিল পাহাড়ি, বন্য এবং দুর্গম এলাকায় ।

হঠাৎ বাসটির আশেপাশে বজ্রপাত হতে থাকলো, শেষের টা তো পড়লো বাসের একদম কাছেই, সবাই তো মরতে মরতে বেঁচে গেল। যাত্রীরা তো খুব ভয় পেয়ে গেল এবং তারা ভাবতে লাগলো যে ,তারা খুবই প্রসন্ন মনে তীর্থ করেছেন, কিন্তু কেন এমন বজ্রপাত ?
বাস চালক বাস থামিয়ে প্যাসেঞ্জারদের কাছে এলো, এবং বলল "এই বাসের মধ্যে এমন কেউ আছে যার কপালে মৃত্যু লেখা আছে, অথবা ভগবান তার উপর অসন্তুষ্ট হয়েছেন। অতএব আমরা তো ওই একজনের জন্য আর প্রাণ হারাতে পারি না !"

তাই বাস চালক একটি বুদ্ধি বের করলো,

এবং বলল ;
               " বাস থেকে দূরে একটি বটগাছ দেখা যাচ্ছে প্রত্যেকটি যাত্রী এক এক করে ওই বটগাছটি ছুঁয়ে বাসে ফিরে আসবে ।"

অতএব, বাস চালকের কথা মত তাই করতে হলো।  সবাই এক এক করে নেমে ভয়ে কাঁপতে কাঁপতে ওই বটগাছটি ছুঁয়ে আবার বাসে উঠে এসে বসলো।

সবার শেষে একজন বাসের মধ্যেই বসেছিল, সবাই ভাবল এই হয়তো সেই লোক যার জন্য আমরা বিপদে পড়েছি ।

শেষের লোকটি বিষণ্ন মনে কাঁপতে কাঁপতে বাস থেকে নামল, এবং সে ভাবল হয়তো তার কোন ভুল হয়েছে,  ভগবান তাকে শাস্তি দিতে চান।
 এই ভাবতে ভাবতে সেই লোকটি বট গাছের কাছে পৌঁছল এবং বটগাছে ছোঁয়া মাত্রই দ্রুতগতিসম্পন্ন এক বজ্রপাত হল বাসটির উপর।

লোকটি বিস্ময়ে তাকিয়ে থাকে জ্বলন্ত বাসটির দিকে।

বাসভর্তি যাত্রীরা তাদের রক্ষা কবচ কেই বাইরে বের করে দিল। অতএব যার জন্য বজ্রপাত টা বাসের বাইরে পড়ছিল, বাসের মধ্যে পড়ছিল না, ওরা তাকেই বের করে দিল।
এই গল্পটি অনেকটা আমাদের প্রতিদিনের জীবনের মত, এ গল্পটি আমাদের অনেক কিছু শেখায় যা থেকে আমরা অনেক কিছু শিখতে পারি ।




গল্পটি থেকে আপনি কি শিখলেন ? কমেন্ট করে আমাকে জানাতে পারেন। অথবা আমাকে ফলো করতে পারেন ফেসবুক টুইটার অথবা ইনস্টাগ্রাম এ । এরকম সুন্দর সুন্দর গল্প পেতে জুড়ে থাকুন আমাদের সাথে। 



Post a Comment

Previous Post Next Post